আজকের বার্তা | logo

১লা অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৫ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং

বিক্ষোভ কাফনের কাপড় বেঁধে পটুয়াখালীতে

প্রকাশিত : নভেম্বর ০৯, ২০১৮, ১৫:৫৮

বিক্ষোভ কাফনের কাপড় বেঁধে  পটুয়াখালীতে

অনলাইন সংরক্ষণ  //  তিন ফসলি জমি রক্ষায় মাথায় কাফনের কাপড় বেঁধে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন করেছেন পটুয়াখালীর কলাপাড়া উপজেলার দুই ইউনিয়নের কয়েক হাজার কৃষক। গতকাল বেলা ১১টায় উপজেলার ধানখালী ইউনিয়ন পরিষদ চত্বরে এ বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়।মানববন্ধনে কৃষকদের পক্ষে বক্তব্য রাখেন কৃষক ফরিদ তালুকদার, আবদুল মান্নান, আফজাল হোসেন, আনসার উদ্দীন মোল্লা ও আতাউর রহমান মিলন মিয়া। তারা বলেন, কলাপাড়া উপজেলার প্রায় দুই লাখ হেক্টর জমির মধ্যে ২৫ একর জমি তিন ফসলি।

এই ২৫ হাজার একর জমির মধ্যে ১৬ হাজার একর জমি ধানখালী ও চম্পাপুর ইউনিয়নে। এখানে উৎপাদিত তরমুজ, মুগডাল, আমন ধান সারাদেশে রপ্তানি করা হয়।এই জমিগুলো অধিগ্রহণ করে ইতোমধ্যে দুটি বিদুৎকেন্দ্র নির্মাণ করেছে সরকার। এলাকার মানুষ দুই হাজার একর জমি দুটি বিদুৎ কেন্দ্রের জন্য প্রদান করেছে; কিন্তু এলাকার মানুষের সরলতার সুযোগ নিয়ে বেসরকারি কিছু সংস্থা আবারও জমি অধিগ্রহণের প্রক্রিয়া শুরু করেছে। কৃষকরা ঐক্যবদ্ধ হয়েছেন, জীবনের বিনিময়ে হলেও তাদের ফসলি জমি রক্ষা করবেন।

এ সময় জেলা প্রশাসক মো. মতিউল ইসলাম চৌধুরী পরিদর্শনের জন্য ধানখালী ইউনিয়ন পরিষদ কমপ্লেক্স এলাকায় পৌঁছলে কৃষকরা স্লোগান দিতে থাকেন। মতিউল ইসলাম ধানখালী ইউনিয়ন পরিষদ মিলনায়তনে ক্ষতিগ্রস্ত কৃষকদের বক্তব্য শোনেন। তিনি বলেন, তিন ফসলি জমি অধিগ্রহণ না করতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নির্দেশ রয়েছে। কৃষকদের ক্ষতি করে কোনো জমি ধানখালী থেকে অধিগ্রহণ করা হবে না। এ সময় উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোতালেব তালুকদার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) মামুনুর রশীদ, ধানখালী ও চম্পাপুর ইউপির চেয়ারম্যানরা উপস্থিত ছিলেন।

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।