সাতলার উপ-নির্বাচনে  দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী প্রার্থীদের দৌড়ঝাঁপ..

প্রকাশিত: ৩:৪৭ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ১৯, ২০২০

রাহাদ সুমন,বানারীপাড়া (বরিশাল) প্রতিনিধি ::

২০ অক্টোবর বরিশালের উজিরপুরের সাতলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে অনুষ্ঠেয় উপ-নির্বাচনে  দলীয় মনোনয়ন পেতে সম্ভাব্য প্রার্থীদের লবিং-তদবির ও দৌড়ঝাঁপ শুরু হয়েছে। নৌকার টিকিট পেতে উপজেলা, জেলা ও কেন্দ্রীয় নেতাদের আশীর্বাদ লাভে সম্ভাব্য প্রার্থীদের ব্যাপক তৎপরতা শুরু হয়েছে।

বিশেষ করে তারা মন্ত্রী পদমর্যাদার পার্বত্য শান্তি চুক্তি বাস্তবায়ন পরীবিক্ষণ কমিটির আহবায়ক, বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি ও বরিশাল-১ আসনের সংসদ সদস্য আলহাজ্ব আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ, বরিশাল-২ আসনের সংসদ সদস্য বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি মো. শাহে আলম ও সাবেক সংসদ সদস্য এবং জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুসের আস্থা ও আশীর্বাদ পেতে মরিয়া হয়ে উঠেছেন। এদিকে প্রার্থীদের তৎপরতায় গোটা ইউনিয়নে বইছে নির্বাচনী হাওয়া।

এখন পর্যন্ত শাসকদল আওয়ামীলীগের ৯জন সহ ডজন খানেক প্রার্থীর নাম আলোচিত হচ্ছে। প্রার্থী হিসেবে যাদের নামের গুঞ্জন রয়েছে তারা হলেন- সাতলার সাবেক জননন্দিত ইউপি চেয়ারম্যান ৭১’র রণাঙ্গনের বীর মুক্তিযোদ্ধা প্রয়াত ফজলুল হক হাওলাদারের ছেলে উপজেলা আওয়ামীলীগের সদস্য মোঃ শাহীন হাওলাদার,সাবেক সংসদ সদস্য প্রয়াত হরনাথ বাইনের বড় ছেলে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সহ-সভাপতি পরিমল কুমার বাইন অনু (৫৫), উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সভাপতি ও সদ্য প্রয়াত সাতলা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আঃ খালেক আজাদের ছেলে ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সদস্য মোঃ মশিউর রহমান মিয়া, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইদ্রিস সরদার, উপজেলা যুবলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ খাইরুল বাশার লিটন, ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মোঃ আনোয়ার হোসেন বালী, আওয়ামী লীগ নেতা ও ব্যবসায়ী মোঃ ফজলুল হক বালী (৫৫), উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য মোঃ মনিরুজ্জামান বিশ্বাস।

এদের মধ্যে নৌকার টিকিট পাওয়ার বিষয়ে আলোচনা শীর্ষে রয়েছেন প্রয়াত সাবেক  নন্দিত দুই ইউপি চেয়ারম্যান পুত্র শাহীন হাওলাদার ও মশিউর রহমান এবং যুবলীগ নেতা খায়রুল বাশার লিটন। এ ছাড়া সম্ভাব্য চেয়ারম্যান প্রার্থী হিসেবে জাসদ ছাত্রলীগের বি.এম কলেজ শাখার সাবেক সভাপতি ও  বেসরকারি টিভি চ্যানেল জিটিভির বরিশাল ব্যুরো চিফ সাংবাদিক নিকুঞ্জ বালা পলাশ, ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ (চরমোনাই) সম্ভাব্য প্রার্থী মোঃ মোজাম্মেল হক বালী ও  বিএনপি থেকে এখন পর্যন্ত মেজবাহ উদ্দিনের নাম শোনা যাচ্ছে।

এদিকে ইতিমধ্যে উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতৃবৃন্দের কাছে দলীয় মনোনয়ন প্রত্যাশী সম্ভাব্য প্রার্থীরা তাদের বায়োডাটা জমা দিয়েছেন বলে জানা গেছে। প্রসঙ্গত, চলতি বছর মে মাসে ইউপি চেয়ারম্যান আঃ খালেক আজাদের মৃত্যু হওয়ায় ওই পদটি শূন্য ঘোষণা করে নির্বাচন কমিশন। ১৪ সেপ্টেম্বর নির্বাচনী তফসিল ঘোষণা করা হয়।

তফসিল অনুযায়ী আগামী ২৩ সেপ্টেম্বর বুধবার রিটার্নিং অফিসারের নিকট মনোনয়ন পত্র দাখিলের শেষ তারিখ, ২৬ সেপ্টেম্বর শনিবার মনোনয়ন পত্র বাছাই, ৩ অক্টোবর শনিবার প্রার্থিতা প্রত্যাহার এবং ২০ অক্টোবর মঙ্গলবার ভোট গ্রহণের তারিখ নির্ধারণ করা হয়েছে। ঐতিহ্যবাহী এ ইউনিয়নে মোট ভোটার সংখ্যা ২২ হাজার ৫শত ৭ জন। এর মধ্যে পুরুষ ভোটার ১১ হাজার ৯শত ৬১ জন এবং মহিলা ১০ হাজার ৫শত ৪৬ জন।

Sharing is caring!