র‌্যাবের অভিযানে অস্ত্র উদ্ধার : ইউপি নির্বাচনকে ঘিরে তপ্ত মহিপুরের পরিবেশ

প্রকাশিত: ৬:১০ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ১৮, ২০২০

মেজবাহউদ্দিন মাননু, কলাপাড়া প্রতিনিধি ::

মহিপুর ইউনিয়ন পরিষদের সাধারণ নির্বাচনকে ঘিরে সেখানকার পরিবেশ তপ্ত হয়ে উঠেছে। আইন-শৃঙ্খলাবাহিনী সুষ্ঠু নির্বাচনের লক্ষ্যে র‌্যাবের অভিযানে শুক্রবার রাতে নৌকা প্রতীকের প্রার্থী আব্দুল মালেক আকন্দের মাছের আড়ত থেকে বন্দুক, পিস্তল, গুলি ও ধারালো অস্ত্র উদ্ধার করেছে। সেখান থেকে গ্রেফতার করা হয় ফারুক ও মেহেদীকে। এঘটনায় যদিও মালেক আকন্দ দাবি করেছেন সেখানে অস্ত্র রেখে তাকে জড়ানোর পাঁয়তারা করা হয়েছে। তিনি শনিবার কলাপাড়া প্রেসক্লাবে এক সংবাদ সম্মেলনে এসব স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীর ষড়যন্ত্র বলে দাবি করেছেন।

তিনি এও বলেন, বহু বহিরাগত জড়ো করা হচ্ছে। সুষ্ঠু নির্বাচনী পরিবেশ নষ্ট করার অভিযোগ করেন। তার সমর্থকদের হুমকি-ধমকি দেয়ার অভিযোগ করেন। অপরদিকে শুক্রবার সকাল ১০টায় স্বতন্ত্র্র চেয়ারম্যান প্রার্থী হাজী ফজলু গাজী এক সংবাদ সম্মেলনে সুষ্ঠু নির্বাচনী পরিবেশ নেই বলে দাবি করেন। শত শত বহিরাগত প্রতিদিন এলাকায় ঘুরে বেড়াচ্ছে। তার কর্মী-সমর্থকদের ভয়-ভীতি দেখানো হচ্ছে। ভোটের দিন কেন্দ্র দখলের অভিযোগ করে ঝুঁকিপূর্ণ কেন্দ্রে বিশেষ নজর দেয়ার দাবি জানান। দুই প্রার্থীর সংবাদ সম্মেলন পাল্টাসংবাদ সম্মেলনে নির্বাচনী পরিবেশ উত্তপ্ত হয়ে উঠেছে।

আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থীর দাবি নিশ্চিত পরাজয় জেনে স্বতন্ত্র প্রার্থী ষড়যন্ত্র করে যাচ্ছেন।

এদিকে রিটার্নিং অফিসার মো. আব্দুর রশীদ জানান, অবাধ ও সুষ্ঠু নির্বাচন সম্পন্নের জন্য সকল ধরনের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। ১৪ হাজার ৭৬৯ জন ভোটার অধ্যুষিত মহিপুর ইউনিয়নে ২০ অক্টোবর, মঙ্গলবার নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে। এ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে দুই জন প্রার্থী লড়ছেন।

 

Sharing is caring!