মানব পাচার গণ উপদ্রবের অভিযোগে কুয়াকাটায় দুই নারীসহ গ্রেফতার ৪

প্রকাশিত: ১১:৫২ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৬, ২০২১

কলাপাড়া প্রতিনিধি ॥ মানব পাচার গণউপদ্রবের অভিযোগে কুয়াকাটার কচ্ছপখালী গ্রামের একটি ভাড়া বাড়ি থেকে ভাড়াটে মামুন পাইক ওরফে রুম্মান (৪২), রেণু বেগম রীনা (৪০), সুমি আক্তার (২০) ও রবিউলকে (২৭) গ্রেফতার করা হয়েছে। মহিপুর থানা পুলিশ বৃহস্পতিবার দিবাগত মধ্যরাতে এদেরকে গ্রেফতার করে। এ ঘটনায় মহিপুর থানায় মানব পাচার প্রতিরোধ ও দমন আইনে শুক্রবার একটি মামলা হয়েছে। এসআই আসাদুজ্জামান জুয়েল মামলাটি করেছেন। সকল আসামিকে শুক্রবার আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। মামলায় বলা হয়েছে, মাদারিপুরের কালকিনি উপজেলার মামুন পাইক কুয়াকাটার একটি ভাড়া বাড়িতে নারী পুরুষ অসামাজিক, অনৈতিক ও পতিতাবৃত্তির কাজ করে গণ উপদ্রব সৃষ্টি করে আসছিল। বৃহস্পতিবার মধ্যরাতে পুলিশ নির্দিষ্ট টহলকালে এদের গ্রেফতার করে।

 

গ্রেফতারকৃত অপর আসামি রেনু বেগমের বাড়ি বরিশাল সদও থানার পলাশপুর মহল্লায়। স্বামীর নাম রিপন জোমাদ্দার। সুমি আক্তারের বাড়ি ভোলার লালমোহন উপজেলায় এবং রবিউলের বাড়ি কলাপাড়া উপজেলার মহিপুর ইউনিয়নের নজিবপুর গ্রামে। তার বাবার নাম মোঃ আলমগীর। সকল আসামি বিজ্ঞ আদালতের নির্দেশে জেল হাজতে রয়েছে।