ভয়কে জয় করে করোনার ভ্যাকসিন নিতে ছুটছে মানুষ

প্রকাশিত: ১০:২৬ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ৮, ২০২১

স্টাফ রিপোর্টার ॥ কার্যক্রম শুরুর এক দিনের মধ্যেই বরিশালে করোনার টিকা গ্রহণে সাধারণ মানুষের মাঝে আগ্রহ বেড়েছে। তারা কেন্দ্রে কেন্দ্রে গিয়ে টিকা গ্রহণের জন্য নিবন্ধন করছেন। কেউ কেউ ঘরে বসেই নিবন্ধনের কাজ সেরে ফেলছেন। ভয়কে জয় করে মানুষ এখন ভিড় জমাচ্ছেন বরিশাল নগরীর করোনা টিকাদান কেন্দ্রগুলোতে। এদিকে, গত ৭ ফেব্রুয়ারি সকাল থেকে দিনব্যাপী করোনার টিকা গ্রহণ করা কোন ব্যক্তির শরীরে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া দেখা দেয়নি বলে দাবি করেছে স্বাস্থ্য বিভাগের সংশ্লিষ্ট সূত্র। আর এ কারণেই মঙ্গলবার জনগণের ভীতি দূর করার পাশাপাশি টিকা গ্রহণে আগ্রহ বৃদ্ধির জন্য মঙ্গলবার টিকা গ্রহণ করবেন বরিশালের স্বাস্থ্যবিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা।

 

বরিশাল সিটি কর্পোরেশনের স্বাস্থ্য বিভাগের প্রধান স্বাস্থ্য কর্মকর্তা ডা. মো. মতিউর রহমান জানিয়েছেন, ‘করোনা টিকা গ্রহণের দ্বিতীয় দিন সকাল সাড়ে ৮টায় শুরু হয় টিকা প্রদান কার্যক্রম। দ্বিতীয় দিনে বরিশাল নগরীর শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে দুটি, মেডিকেল কলেজের একটি, নার্সিং কলেজে একটি, বিভাগীয় পুলিশ হাসপাতালের একটি ও জেনারেল হাসপাতালের দুটি বুথে এবং বরিশাল জেলার ৯টি উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের একটি করে বুথে টিকা প্রদান শুরু হয়। দিনের শুরুতে টিকা গ্রহণকারীদের সংখ্যা কম থাকলেও বেলা বাড়ার সাথে সাথে তাদের সংখ্যা বাড়তে থাকে।

 

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বুথে টিকা গ্রহণকারী ডা. সুব্রত বলেন, ‘করোনা থেকে সুরক্ষার জন্য স্বেচ্ছায় টিকা নিয়েছি। এতে কোন পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া অনুভব হয়নি। ভয়কে জয় করে নিজের সুরক্ষার জন্য সকলের উচিত করোনার টিকা গ্রহণ করা।
এ হাসপাতালের টিকাদান কেন্দ্রের বুথে দায়িত্বে থাকা লাবনী নামের স্বেচ্ছাসেবক জানান, ‘প্রথম পর্যায়ে সরকারি বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা টিকা নিয়েছেন। রেজিস্ট্রেশন করলে সাধারণ জনগণকেও টিকা দেয়া হচ্ছে।

 

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের বরিশাল বিভাগীয় কার্যালয়ের পরিচালক ডা. বাসুদেব কুমার দাস জানান, ‘করোনার টিকা নিয়ে মানুষের মধ্যে যে একটা ভয় কাজ করছিল সেটা ধীরে ধীরে কেটে যাচ্ছে। এ কারণে টিকা গ্রহণে আগ্রহীর সংখ্যাও ধীরে ধীরে বাড়ছে।

তিনি বলেন, ‘এ টিকা গ্রহণ করলে করোনা ভাইরাস থেকে সুরক্ষা পাওয়া যাবে। এ কারণেই সকলের উচিত টিকা গ্রহণ করা। আমরা স্বাস্থ্যবিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারাও টিকা গ্রহণ করবো। মঙ্গলবার সকালে বরিশাল জেনারেল হাসপাতালে বিভাগীয় স্বাস্থ্য কার্যালয়ের তিনিসহ আমাদের উপ-পরিচালক, সহকারী পরিচালক এবং আমাদের পরিবারের সদস্যসহ অন্যান্য কর্মকর্তারা টিকা নিবেন বলে জানিয়েছেন এই কর্মকর্তা।