ভুল চিকিৎসায় প্রসূতির মৃত্যুর অভিযোগ, ক্লিনিক সীলগালা

প্রকাশিত: ৬:৫০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৩, ২০২০

শোভন আহাম্মেদ, কুষ্টিয়া প্রতিনিধি ॥ কুষ্টিয়া শহরের একটি বেসরকারী ক্লিনিকে ভুল চিকিৎসায় শাপলা খাতুন নামে এক প্রসূতি মহিলার মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় শাপলা ক্লিনিক মালিককে আটকের পাশাপাশি ক্লিনিক সীলগালা করে দিয়েছে প্রশাসন। বুধবার সকাল ৯টার দিকে কুষ্টিয়া শহরের কাষ্টম মোড়স্থ শাপলা ক্লিনিকে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় রোগির স্বজন ও এলাকাবাসি ক্লিনিক ঘেরাও করে বিক্ষোভ শুরু করলে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হয়।

শাপলা খাতুন কুমারখালী উপজেলার সোন্দা গ্রামের জুলের সন্তান সম্ভাবা স্ত্রী। প্রসূতি মহিলা কে ওই ক্লিনিকে ভর্তি করা হয় মঙ্গলবার রাতে। পরে ওই রাতেই তার সিজারিয়ান অপারেশন হয়। ক্লিনিক কর্তৃপক্ষের চাহিদা মত রোগির স্বজনরা রোগির জন্য রক্ত এনে দেন। তবে রোগির স্বজনদের অভিযোগ, তাদের সরবরাহ রক্ত না দিয়ে ক্লিনিকের লোকজন ভুল গ্রুপের রক্ত পুশ করে রোগির শরীরে। এতে রোগীর অবস্থার অবনতি ঘটে। পরে সকালে তিনি মারা যান। এ ঘটনায় রোগির স্বজন ও এলাকাবাসি ক্লিনিকে বিক্ষোভ দেখায়। এ ঘটনায় ক্লিনিক মালিক মনিরুল ইসলামকে আটক করেছে পুলিশ। পাশাপাশি ক্লিনিকটি সীলগালা করে দেওয়া হয়েছে।

Sharing is caring!