বাবুগঞ্জে অবিরাম বৃষ্টিতে জনজীবন বিপর্যস্ত : ফসলের ব্যাপক ক্ষতি

প্রকাশিত: ৭:০৪ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ২৩, ২০২০

আরিফ হোসেন, বাবুগঞ্জ প্রতিনিধি ::

সাগরে গভীর নিম্নচাপের কারণে বরিশালের বাবুগঞ্জ উপজেলার সন্ধ্যা, সুগন্ধা ও আড়িয়াল খাঁ নদী পানি বৃদ্ধির সাথে উত্তাল রয়েছে। জোয়ারের উচ্চতা, বাতাস, বৃষ্টি ও ঢেউয়ের তাণ্ডব বেড়েছে। ২১ অক্টোবর রাত থেকে টানা বৃষ্টিতে জনজীবন থমকে গেছে। এতে নিম্নাঞ্চল ও চরাঞ্চল প্লাবিত হয়ে ফসলের ব্যাপক ক্ষয়ক্ষতির আশঙ্কা দেখা দিয়েছে।

উপজেলার দেহেরগতি ইউনিয়নের রাকুদিয়া এলাকার কৃষকরা বলেন, শুক্রবার সকালের জোয়ারের পানিতে ইউনিয়নের নদীতীরের বেশ কিছু ক্ষতি হয়েছে। এছাড়াও এ এলাকায় আমন ধান ও সবজি ক্ষেতের ব্যাপক ক্ষতি হয়। এই সময় পানি বাড়ার কথা নয়। তারপরও জোয়ার ও বৃষ্টিপাতে ক্ষেতে দুই হাত পানি হয়েছে। বাতাসে ধান শুয়ে পড়েছে। সবজিক্ষেত হয়েছে প্লাবিত।

একই ইউনিয়নের মৎস্য ব্যবসায়ী নুরু বলেন, পুকুরের মাছ জোয়ারে ভেসে গেছে। চলতি বছরে টানা জোয়ার ও বৃষ্টিপাতে তার মাছের ঘেরের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে। এছাড়াও বিভিন্ন এলাকায় ছোট – বড় পুকুর ও ফসলের ব্যাপক ক্ষতি হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। শুক্রবার দুপুর ২ টা পর্যন্ত বিভিন্ন সূত্রে এ তথ্য জানা গেছে।
বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১২টা থেকে বাতাস শুরু হয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যায়। সাথে প্রচুর বৃষ্টিপাত হচ্ছে। এখনও থেমে থেমে দমকা হাওয়া বইছে।
এদিকে নিম্ন চাপের এর প্রভাবে সন্ধ্যা, সুগন্ধা ও আড়িয়াল খাঁ নদীর পানি বৃদ্ধির সাথে উত্তাল রয়েছে। নদী সিকিস্তি এলাকা পানিতে প্লাবিত হয়েছে। নদী ভাঙনের শিকার পরিবারগুলো নানাবিধ সমস্যায় পড়েছে।

করোনা মহামারির মধ্যে কৃষকরা ধার-দেনা করে আমন ধান রোপণ এবং শীতকালীন রবি ফসল মূলা, লাল শাক, পালন শাক সহ বিভিন্ন জাতের বীজ বপন করেন এবং পৌষ মাসে আমন ধান ঘরে তুলবেন এ আশায়। সেখানে অতিবর্ষায় স্থায়ী জলবদ্ধতায় সর্বশান্ত হচ্ছেন কৃষক।

Sharing is caring!