বানারীপাড়ায় ব্রিজ নয়, যেন মরণ ফাঁদ!


Deprecated: get_the_author_ID is deprecated since version 2.8.0! Use get_the_author_meta('ID') instead. in /home/ajkerbarta/public_html/wp-includes/functions.php on line 4861
প্রকাশিত: ১:৫৫ অপরাহ্ণ, জুলাই ৫, ২০২০

রাহাদ সুমন, বানারীপাড়া প্রতিনিধি ॥ বানারীপাড়ায় আলতা ফায়জুল হক ব্রিজ মরণ ফাঁদে পরিণত হয়েছে। গত এক বছর পূর্বে ওই ব্রিজের মাঝের অংশ ভেঙে বড় আকারের গর্তের সৃষ্টি হয়। এছাড়া বালুর বাল্কহেডের ধাক্কায় ব্রিজের নিচের লোহার বিম ও অ্যাঙ্গেল ভেঙে ব্রিজ দেবে ও কিছুটা হেলে পড়ে মৃত্যু ফাঁদে পরিণত হয়।

বানারীপাড়া উপজেলার রায়েরহাট ও পিরোজপুরের স্বরূপকাঠি উপজেলার কুড়িয়ানা সড়কের আলতা গ্রামে ফায়জুল হক ব্রিজটি ১৯৯৮-৯৯ অর্থ বছরে নির্মাণ করা হয়। শের-ই-বাংলার একমাত্র তনয় তৎকালীন আওয়ামী লীগ সরকারের পাট ও বস্ত্র প্রতিমন্ত্রী এবং বানারীপাড়া-স্বরূপকাঠি আসনের সংসদ সদস্য একে ফায়জুল হক দু’উপজেলার মধ্যে সেতুবন্ধন তৈরী করার জন্য ওই ব্রিজটি নির্মাণ করায় স্থানীয়রা তার নামে এর নামকরণ করেন। এদিকে গত এক বছর পূর্ব থেকে ব্রিজটি মরণ ফাঁদে পরিণত হলেও সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের এ নিয়ে কোন মাথা ব্যথা নেই।

স্থানীয়রা ব্রিজের ভাঙা অংশে স্টিলের পাত দিয়ে জোড়াতালি দেওয়ার চেষ্টা করেন। সাম্প্রতিক সময়ে ব্রিজের মাঝে আরও একাধিক গর্তের সৃষ্টি হওয়ার পাশাপাশি রেলিং খসে খসে পড়ছে। দিন-রাত ক্ষতিগ্রস্ত ওই ব্রিজের ওপর দিয়ে মৃত্যু ঝুঁকি নিয়ে বিভিন্ন যানবাহন ও মানুষ চলাচল করছে। যেকোন সময় ব্রিজটি খালে ভেঙে পড়ে মর্মান্তিক ট্র্যাজেডি ঘটতে পারে। ফলে এলাকাবাসী দুর্ঘটনা এড়াতে অনতিবিলম্বে ব্রিজটি ভেঙে নতুন ব্রিজ নির্মাণের দাবি জানিয়েছেন।

এ প্রসঙ্গে বানারীপাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব গোলাম ফারুক বলেন, ঝুঁকিপূর্ণ ওই ব্রিজটি ভেঙে সেখানে নতুন ব্রিজ নির্মাণের জন্য ইতোমধ্যে এলজিইডি মন্ত্রণালয়ে প্রস্তাব পাঠানো হয়েছে।