বানারীপাড়ায় আ’লীগের ইউপি চেয়ারম্যান মন্নান মৃধার সংবাদ সম্মেলন

প্রকাশিত: ৮:৪৫ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ২৮, ২০২১

বানারীপাড়া প্রতিনিধি ॥ বরিশালের বানারীপাড়া উপজেলার সৈয়দকাঠি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান ও ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুল মন্নান মৃধা সংবাদ সম্মেলন করেছেন। বৃহস্পতিবার (২৮ জানুয়ারি) সকাল ১০ টায় ইউনিয়ন পরিষদের সম্মুখে তিনি সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে তার সময়ের অভূতপূর্ব বিভিন্ন উন্নয়ন পাশাপাশি আওয়ামী লীগে অনুপ্রবেশকারী বিএনপি দলীয় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন মৃধা ও অন্য ব্যক্তিরা এবং কতিপয় বহিরাগত সর্বহারারা দল এবং পরিষদের সমৃদ্ধিতে বাধা হয়ে দাঁড়িয়েছে বলে জানান। তিনি বলেন, সৈয়দকাঠি ইউনিয়নকে মডেল ইউনিয়ন হিসেবে গড়ে তুলতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে স্থানীয় নেতৃবৃন্দের সাথে নিয়ে উন্নয়নের কাজ শুরু করলেই ওই অপশক্তিরা বাধা হয়ে দাঁড়াতো।

 

উন্নয়ন কাজ থেকে এই চক্রটি অনৈতিক সুবিধা নিতে না পেরে দল এবং সমাজের কাছে তাকে হেয়প্রতিপন্ন করার জন্য বিভিন্ন কুটকৌশল অবলম্বন করছে বলেও তিনি তার লিখিত বক্তব্যে বলেন। তিনি বলেন, তার সময়ে সৈয়দকাঠি ইউনিয়নকে অনেকটা শহুরের ন্যয় গড়ে তোলা হয়েছে। সুবিধা ভোগীদের শত ভাগ পাওনা বুঝিয়ে দিয়েছেন এটাই তার জন্য গলার কাঁটা হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ জন্যই ওই চক্রটি তার পিছু নিয়ে সঠিক নয় এমন মনগড়া মন্তব্য এবং বক্তব্য দিচ্ছে।

 

চেয়ারম্যানের সাথে একমত পোষণ করে বক্তব্য দিয়েছেন সৈয়দ আমিনুল হক ডিগ্রী কলেজের প্রভাষক মৃনাল কান্তি, সৈয়দকাঠি ইউনিয়নের ৯নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও প্যানেল চেয়ারম্যান আব্দুল মন্নান বেপারী, ১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও ইউপি সদস্য নির্মল মন্ডল, সাধারণ সম্পাদক দীপক সরকার, ২নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি বাবু জগদিশ চন্দ্র বড়াল ও সাধারণ সম্পাদক মো. মনিরুজ্জামান, ৩নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি মো. মকবুল হোসেন, সাধারণ সম্পাদক মো. আলমগীর হোসেন, ৪নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রহিম, ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের প্রচার সম্পাদক ও ৫নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. জাহিদুল ইসলাম কাজল, একই ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক মো. শাহজাহান মৃধা, ৬নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও ইউপি সদস্য মো. পনিরুজ্জামান, ৮নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. আনোয়ার হোসেন, ইউনিয়ন ছাত্রলীগের পক্ষে কথা বলেন মো. সবুজ মিয়া, এ সময় ৪নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য মো. আমিনুল ইসলাম রাজু প্রমুখ।

 

বক্তারা আরও বলেন, আসন্ন ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ওই চক্রটি মূলস্রোতের আওয়ামী লীগকে সম্পূর্ণ ইউনিয়নে কোণঠাসা করে রাখতে স্বাধীনতা বিরোধীদের সাথে আঁতাত করছে। যা দলের জন্য এক প্রকার অশনী সংকেত। এখনই সময় স্বাধীনতার স্ব-পক্ষের শক্তিকে জাগ্রত হয়ে সাংগঠনিক ধারায় তাদের সকল প্রকার ষড়যন্ত্র রুখে দেয়ার। তা না হলে আওয়ামী লীগের উন্নয়নের মহা সড়কে এরাই বাধার সৃষ্টি করে চলবে ধারাবাহিকভাবে। চেয়ারম্যান আব্দুল মন্নান মৃধা পরিষদের সকল প্রকার কার্যক্রম ইউনিয়ন ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দদের সাথে নিয়ে পরিচালিত করেছেন বলেও বক্তারা উল্লেখ করেন। সংবাদ সম্মেলনে অন্যান্যের মধ্যে ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের কয়েক শত সাধারণ নেতা-কর্মী ও সমর্থক উপস্থিত ছিলেন।