বাকেরগঞ্জে ডাকাতি ও হত্যা মামলায় ডাকাত সর্দারের যাবজ্জীবন


Deprecated: get_the_author_ID is deprecated since version 2.8.0! Use get_the_author_meta('ID') instead. in /home/ajkerbarta/public_html/wp-includes/functions.php on line 4861
প্রকাশিত: ১১:১৯ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ৪, ২০২০

মো. জিয়াউদ্দিন বাবু ::

বরিশালের বাকেরগঞ্জে ডাকাতি করতে গিয়ে গুলি করে হত্যার ঘটনায় দায়েরকৃত মামলায় আন্তঃজেলা ডাকাত দলের এক সর্দারকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত।
একই সাথে ২০ হাজার টাকা জরিমানা অনাদায়ে আরও ৬ মাসের সশ্রম কারাদণ্ডে দণ্ডিত করা হয়েছে তাকে। তবে এ মামলায় অভিযোগ প্রমাণ না হওয়ায় ৮ জনকে খালাস দিয়েছেন আদালত।

বুধবার দুপুরে বরিশালের প্রথম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মুহাম্মদ মাহবুব আলম আসামির উপস্থিতিতে এই দণ্ডাদেশ দিয়েছেন।
দণ্ডিত ডাকাত হাবিবুর রহমান প্রকাশ (৩৮) বরিশালের বাকেরগঞ্জ উপজেলার পাদ্রিশিবপুর ইউনিয়নের পাদ্রিশ্রিবপুর পশ্চিম পাড় এলাকার বাসিন্দা সুলতান দফাদারের ছেলে। তিনি আন্তঃজেলা ডাকাত দলের সর্দার।

তথ্য নিশ্চিত করে মামলার নথির বরাত দিয়ে আদালতের বেঞ্চ সহকারী রেজাউল ইসলাম জানান, ২০০৬ সালের ১৫ নভেম্বর রাত দেড়টায় পাদ্রি শিবপুর পশ্চিম পাড়ের স্টানলি গোমেজের বসত ঘরে ডাকাত সর্দার হাবিবুর রহমান ওরফে প্রকাশ হাবিবের নেতৃত্বে ডাকাতি সংঘটিত হয়।

এসময় স্টানলি গোমেজ এর স্ত্রী স্টানল গোমেজ ডাক-চিৎকার দিলে প্রতিবেশীরা ছুটে আসেন। তখন ডাকাত সদস্যরা এলোপাতাড়ি গুলি বর্ষণ করে। এতে শাহ আলম নামের এক ব্যক্তি গুলিবিদ্ধ হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান।

এই ঘটনায় স্টানলি গোমেজ বাদী হয়ে ঘটনর পর দিন ১৬ নভেম্বর বাকেরগঞ্জ থানায় ডাকাত দলের ১১ সদস্যের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করেন। পরবর্তীতে ২০০৭ সালের ১৫ জুন বাকেরগঞ্জ থানার সাবেক উপ-পরিদর্র্শক (এসআই) আতাউর রহমান আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন।

মামলার যুক্তিতর্ক শেষে ২৭ জনের মধ্যে ২২ জন সাক্ষীর সক্ষ্যগ্রহণ শেষে অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায়আন্তঃজেলা ডাকাত সর্দার হাবিবুর রহমান ওরফে প্রকাশ হাবিবকে যাবজ্জীবন কারাদ- এবং ২০ হাজার টাকা জরিমানার আদেশ দেন বিচারক।

বেঞ্চ সহকারী জানান, ‘১১ জন আসামির মধ্যে মামলা চলমান অবস্থায় ২ জনের মৃত্যু হয়েছে। বাকি ৮ জনের অপরাধ প্রমাণিত হয়নি। তাই তাদের খালাস প্রদান করেছেন আদালত। পাশাপাশি দণ্ডপ্রাপ্ত ডাকাত সর্দারকে বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।