বাকেরগঞ্জের বাচ্চু ডাকাতের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড : ১৪ জন খালাস

প্রকাশিত: ৯:৩১ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ১৪, ২০২১

মোঃ জিয়াউদ্দিন বাবু ॥ বরিশালের বাকেরগঞ্জে ডাকাতি মামলায় বাচ্চু হাওলাদার ওরফে বাচ্চু ডাকাত (৪৭) নামে এক ডাকাত সরদারকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। তবে দোষী প্রমাণিত না হওয়ায় মামলার অপর ১৪ আসামিকে খালাস প্রদান করা হয়েছে। ডাকাতি মামলা দায়েরের ১৩ বছর পর রবিবার দুপুরে বরিশালের প্রথম অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মুহাম্মদ মাহবুবুল আলম এই দণ্ডাদেশ দিয়েছেন।

 

দণ্ডিত ডাকাত সরদার বাচ্চু হাওলাদার বাকেরগঞ্জ উপজেলার চরাদী ইউনিয়নের বাসিন্দা মৃত আশ্রাফ আলী’র ছেলে। বর্তমানে তিনি পলাতক রয়েছেন। মামলার নথির বরাত দিয়ে আদালতের বেঞ্চ সহকারী রেজাউল করীম জানান, ‘২০০৯ সালের ১৭ অক্টোবর রাত ৩টার দিকে চরাদী গ্রামের বাসিন্দা মোখলেছ সিকদার এর বাড়িতে ডাকাতি সংঘটিত হয়। ডাকাত দলের সদস্যরা সিঁদ কেটে ঘরে প্রবেশ করে বাদীসহ পরিবারের সদস্যদের অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ অর্থ, স্বর্ণালংকার, মোবাইল সেট এবং ঘড়িসহ ৫৬ হাজার ৭শত টাকার মালামাল লুট করে।

 

এই ঘটনায় একই দিন মোখলেছুর রহমান বাদী হয়ে বাকেরগঞ্জ থানায় ১৫ জনের নাম উল্লেখ করে একটি মামলা দায়ের করেন। পরবর্তী ২০১০ সালের ৭ জুলাই মামলার তদন্ত কর্মকর্তা বাকেরগঞ্জ থানার তৎকালীন এসআই জহুরুল ইসলাম আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন।

 

আদালত মামলার নির্ধারিত ৮ জন সাক্ষীর সাক্ষ্যগ্রহণ শেষে অপরাধ প্রমাণিত হওয়ায় ডাকাত দলের সরদার বাচ্চু হাওলাদারকে যাবজ্জীবন সশ্রম কারাদণ্ড এবং নির্দোষ প্রমাণিত হওয়া মামলার ১৪ আসামিকে খালাস প্রদান করেন। পাশাপাশি রায় ঘোষণাকালে আসামি পলাতক থাকায় তাকে গ্রেফতারে ওয়ারেন্ট জারির আদেশ দিয়েছেন বিচারক।