বরিশাল চিকিৎসক হোস্টেল থেকে ইয়াবাসহ যুবলীগ নেতার সহযোগী আটক

প্রকাশিত: 3:06 PM, October 17, 2019

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইন্টার্ন চিকিৎসক হোস্টেল থেকে হাতুড়ি, ছুরি, জিআই পাইপ ও ইয়াবা উদ্ধার করেছে পুলিশ।একই সঙ্গে হোস্টেল থেকে বিয়ার ও মদের খালি বোতল উদ্ধার করা হয়েছে। এ সময় রিশাতুল ইসলাম নামে বহিরাগত এক যুবককে আটক করা হয়।বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টা থেকে দুপুর সাড়ে ১২টা পর্যন্ত মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের এফএম নূর-উর রফি ইন্টার্ন চিকিৎসক হোস্টেলে অভিযান চালায় পুলিশ। অভিযান চালিয়ে হাতুড়ি, ছুরি ও ইয়াবা উদ্ধার করা হয়।

আটক রিশাতুল ইসলাম নগরীর জুমির খান সড়কের বাসিন্দা। শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ডা. এসএম বাকির হোসেন বলেন, বেলা ১১টার দিকে এফএম নূর-উর রফি ইন্টার্ন চিকিৎসক হোস্টেল পরিদর্শনে যাই। ৩০৩ নম্বর কক্ষে গিয়ে দেখি এক যুবক বিশ্রাম নিচ্ছে। তার পরিচয় জানতে চাইলে অসংলগ্ন কথাবার্তা বলে। ইন্টার্ন চিকিৎসক না হয়েও রুম দখল করে রাখার কারণ জানতে চাইলে নিজেকে যুবলীগ নেতা সোহেল ওরফে বাঘা সোহেলের সহযোগী বলে পরিচয় দেয় ওই যুবক।এ অবস্থায় পুলিশকে বিষয়টি জানানো হয়। পরে ইন্টার্ন চিকিৎসক হোস্টেলে অভিযান চালায় পুলিশ। এ সময় ৩০৩ নম্বর কক্ষ থেকে ৫২০ পিস ইয়াবা ও ইয়াবা সেবনের সরঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়। ওই রুম থেকে উদ্ধার করা হয় হাতুড়ি, ছুরি, জিআই পাইপ, বিয়ার ও মদের খালি বোতল। পরে ওই যুবককে আটক করে পুলিশ।

বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের উপকমিশনার (দক্ষিণ) মোয়াজ্জেম হোসেন ভূঁইয়া বলেন, বরিশাল মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইন্টার্ন চিকিৎসক হোস্টেলে অভিযান চালিয়ে ইয়াবাসহ রিশাতুল ইসলাম নামে এক যুবককে আটক করা হয়েছে। তাকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। মাদক গ্রহণ বা ব্যবসার সঙ্গে হোস্টেলের ইন্টার্ন চিকিৎসকরা জড়িত কিনা তা খতিয়ে দেখা হচ্ছে।এর আগে গত ১৩ সেপ্টেম্বর ২ হাজার ৫০০ পিস ইয়াবা ও নগদ এক লাখ টাকাসহ নগরীর গোরস্থান রোড থেকে রিশাতুল ইসলামের স্ত্রী ও সুমন মৃধা নামে এক যুবককে আটক করা হয়। তারা বর্তমানে কারাগারে।

Share Button