বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারের শৌচাগার থেকে ধর্ষণ মামলার আসামির ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার


Deprecated: get_the_author_ID is deprecated since version 2.8.0! Use get_the_author_meta('ID') instead. in /home/ajkerbarta/public_html/wp-includes/functions.php on line 4861
প্রকাশিত: ৫:১৭ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৪, ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার ॥

বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারের শৌচাগার থেকে বাক প্রতিবন্ধী মেয়েকে ধর্ষণ মামলার আসামির গলায় ফাঁস দেয়া মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

শনিবার ভোর রাত ৩টার দিকে কারাগারে হাসপাতালের শৌচাগার থেকে হানিফ খলিফা (৩০) নামের ওই হাজতির মৃতদেহ উদ্ধার করে করা কর্তৃপক্ষ।
মৃত হানিফ খলিফা বরিশাল মহানগরীর এয়ারপোর্ট থানাধীন চৌহুতপুর এলাকার বাসিন্দা ছিলেন। তিনি বাকেরগঞ্জ উপজেলার মধুখালী এলাকায় আলী মোহাম্মদ খলিফার ছেলে।

নিজ মেয়েকে ধর্ষণের অভিযোগে ৩০ সেপ্টেম্বর এয়ারপোর্ট থানায় স্ত্রী’র দায়ের করা মামলায় গ্রেফতার হয়ে গত ১ অক্টোবর থেকে বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারে হাজতি হিসেবে ছিলেন হানিফ খলিফ।

বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারের সিনিয়র জেল সুপার প্রশান্ত কুমার বণিক জানিয়েছেন, ‘কয়েক দিন আগে ডিএনএ পরীক্ষার জন্য হানিফ কারাগারের বাইরে গিয়েছিলেন। কারাগারে ফেরার পরে তাকে কারা হাসপাতালের কোয়ারেন্টিনে রাখা হয়।

তিনি বলেন, ‘শনিবার (১৪ নভেম্বর) ভোররাত তিনটার দিকে তারা জানতে পারেন হানিফ আত্মহত্যা করেছেন। ঘটনাস্থলে গিয়ে দেখতে পান, মশারি ছিঁড়ে রশি বানিয়ে শৌচাগারের পানির পাইপ লাইনের সাথে ঝুলে গলায় ফাঁস দিয়েছেন হানিফ।

পরে তার মৃতদেহ উদ্ধার করে বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। পাশাপাশি তার স্বজনদের খবর দেয়া হয়েছে। ময়না তদন্ত শেষে মৃতদেহ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হবে।