বরিশালে গ্লোবাল ডে ফর ক্লাইমেট অ্যাকশন পালিত

প্রকাশিত: ১০:২০ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৫, ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার ::

বরিশালের ২২টি সংগঠনের সমন্বয়ে গঠিত ‘অ্যালায়েন্স ফর ইয়ুথ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট’ এর উদ্যোগে সারা বিশ্বের ন্যায় বরিশালেও ‘গ্লোবাল ডে ফর ক্লাইমেট অ্যাকশন’ পালিত হয়েছে। শুক্রবার সকাল ১০টায় মৌন মানববন্ধন, প্রতীকী ধর্মঘট ও বৃক্ষরোপণ কর্মসূচির মধ্যে দিয়ে দিনটি পালন করা হয়। এতে অংশগ্রহণ করেন দুই শতেরও বেশি স্বেচ্ছাসেবী।

কর্মসূচির অংশ হিসেবে শুক্রবার সকালে বরিশাল কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সম্মুখে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। এতে উপস্থিত ছিলেন বরিশাল বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক আসিফ চৌধুরী, অ্যালায়েন্স ফর ইয়ুথ অ্যান্ড ডেভেলপমেন্ট’ বরিশাল এর কো-অর্ডিনেটর মো. মনিরুল ইসলাম প্রমুখ।

এসময় মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারী বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের ছাত্র-ছাত্রী, শিশু-কিশোর, তরুণ ও স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের সদস্যবৃন্দ হাতে প্ল্যাকার্ড, ব্যানার ও ফেস্টুন নিয়ে বৈশ্বিক জলবায়ু পরিবর্তনের প্রতিবাদ জানান।

এদিকে মানববন্ধন শেষে শহীদ মিনারের সামনে থেকে র‌্যালি বের করা হয়। যা বরিশাল জিলা স্কুল, কেন্দ্রীয় শহীদ মিনার, সদর রোড হয়ে অশ্বিনী কুমার হলের সামনে অবস্থান নেয়। সেখানে ৫ মিনিটের জন্য অবস্থান নিয়ে সড়কে অবরোধ ও অবস্থান ধর্মঘট পালন করেন তারা।

এর আগে কেন্দ্রীয় শহীদ মিনারের সামনে মানববন্ধনে অংশগ্রহণকারীরা বলেন, ‘জলবায়ু পরিবর্তনের ফলে বিশ্বে প্রতিনিয়ত অক্সিজেন কমছে। যে কারণে হুমকির মুখে পড়েছে পুরো বিশ্ব। বাড়ছে সাইক্লোন, বজ্রপাত, ভূমিকম্পসহ নানা রকমের প্রাকৃতিক দুর্যোগ। নদী ভাঙনের ফলে অসহায় হয়ে পড়ছে চরাঞ্চলের জনজীবন।
গাছ কেটে বন উজাড় করার হচ্ছে। বিলুপ্ত হচ্ছে বন্যপ্রাণী। জলবায়ু পরিবর্তনের প্রভাব থেকে রেহাই পাচ্ছে না গর্ভের ভ্রƒণসহ ক্ষুদ্র কোন প্রাণ। যেখানে সেখানে প্লাস্টিক বর্জ্য ফেলার কারণে ধ্বংস হচ্ছে পরিবেশের ভারসাম্য।

বক্তারা আরও বলেন, ‘উন্নত রাষ্ট্রগুলোকে কার্বন নিঃসরণের পরিমাণ শূন্যের কোটায় নিয়ে আসতে হবে। ক্ষতিগ্রস্ত দেশগুলোকে অভিযোজন প্রক্রিয়ার আওতায় ঋণ নয়, ক্ষতিপূরণ দিতে হবে বলে দাবি জানান বক্তারা।

Sharing is caring!