বগুড়ায় কলেজ ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে যুবক গ্রেফতার


Deprecated: get_the_author_ID is deprecated since version 2.8.0! Use get_the_author_meta('ID') instead. in /home/ajkerbarta/public_html/wp-includes/functions.php on line 4861
প্রকাশিত: ১:১৭ পূর্বাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ৩, ২০২০

এমদাদুল হক, বগুড়া জেলা প্রতিনিধি:

বগুড়ায় এক কলেজ ছাত্রীকে (১৭) ফুসলিয়া ধর্ষণের অভিযোগে বগুড়া সদর থানা পুলিশ আহসান হাবিব আতিক (৪০) নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে। সোমবার রাতে শহরতলির চারমাথা এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। মঙ্গলবার (২ সেপ্টেম্বর) দুপুরে তাকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে পাঠানো হয়েছে। বিকালে ওই ছাত্রী সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট সুপ্রিয়া রহমানের আদালতে ২২ ধারায় জবানবন্দি দিয়েছেন। এছাড়া তার ডাক্তারি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে। এর আগে সোমবার রাতে ছাত্রীর মা সদর থানায় মামলা করেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা উপশহর ফাঁড়ির এসআই রহিম উদ্দিন জানান, ভিকটিম বগুড়া শহরের খান্দার এলাকার শিক্ষক দম্পতির একমাত্র মেয়ে। তিনি গতবার উচ্চ মাধ্যমিক পাস করেছেন। বগুড়ার কাহালু সদরের সোনালী ব্যাংক সংলগ্ন এলাকার মো. বাবলুর ছেলে আহসান হাবিব আতিক আনন্দ টিভির স্পেশাল রিপোর্টার। তিনি স্থানীয় দৈনিক মহাস্থানের স্টাফ রিপোর্টার ও কাহালু প্রেস ক্লাবের যুগ্ম সম্পাদক। এছাড়া তিনি বিভিন্ন অনলাইন ও মানবাধিকার সংগঠনের সঙ্গে সম্পৃক্ত।

ছাত্রীর মা সোমবার রাতে সদর থানায় এজাহারে উল্লেখ করেছেন, আহসান হাবিব আতিক ফোনে তার মেয়ের সঙ্গে সম্পর্ক গড়ে তোলে। এরপর তাকে নানাভাবে উত্ত্যক্ত করে আসছে। পূর্বপরিচিত হওয়ায় আতিক তার মেয়েকে প্রাইভেট কারে বিভিন্ন স্থানে বেড়ানোর প্রস্তাব দেয়। মেয়ে গত ৫ জানুয়ারি বেলা ১০টার দিকে শহরের জ্বলেশ্বরীতলা এলাকায় রেটিনা কোচিং সেন্টারের গেটে যায়। তখন আতিক কৌশলে তার মেয়েকে প্রাইভেট কারে তুলে শহরতলির চারমাথায় সেঞ্চুরি মোটেলে নিয়ে যায় এবং সাড়ে ১১টার দিকে ধর্ষণ করে। মেয়ে বাড়ি ফিরে ঘটনাটি প্রকাশ করলেও সম্মানের ভয়ে তারা নীরব থাকেন।

এরপর আতিকের দেয়া বিয়ের প্রস্তাবে রাজি না হলে সামাজিকভাবে হেয় এবং অন্যত্র বিয়েতে বাধা দেয়ার কথা বলে। আর বিয়ে দিলেও সংসার করতে দেবে না বলে হুমকি দেয়।