পলিটেকনিকে যে কোনো বয়সে ভর্তির সিদ্ধান্তে আপত্তি: আন্দোলনের হুমকি

প্রকাশিত: ১১:৪০ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৫, ২০২০

বার্তা ডেস্ক :: গত সপ্তাহে শিক্ষা মন্ত্রণালয় সিদ্ধান্ত নেয় যে, পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটে ডিপ্লোমা কোর্সে ভর্তির ক্ষেত্রে কোনো রকমের বয়সের সীমাবদ্ধতা রাখা হবে না। কারিগরি শিক্ষায় ভর্তির হার বৃদ্ধির লক্ষ্যে এবং বিদেশফেরত দক্ষ কর্মীদের প্রাতিষ্ঠানিক স্বীকৃতি দেওয়ার জন্যই এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। তবে মন্ত্রণালয়ের এই সিদ্ধান্ত নিয়ে বিতর্ক উঠেছে, একই সঙ্গে তীব্র আপত্তি জানিয়েছেন এ খাতের উদ্যোক্তা ও বিশেষজ্ঞরা। তারা বলছেন, সরকারের এ সিদ্ধান্তে পলিটেকনিক সেক্টর ধ্বংসের দ্বারপ্রান্তে যাবে।

কারিগরি খাত সংশ্লিষ্টরা বলেন, এই সিদ্ধান্তের ফলে এসএসসি পাস উত্তীর্ণরা পলিটেকনিকে ভর্তির আগ্রহ হারাবে। ভর্তিতে অনীহা দেখাবে মেধাবীরাও। তারা মনে করেন, সরকারের এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়ন হলে রাজনীতি করার জন্য একশ্রেণির যুবক এখানে এসে ভর্তি হয়ে অপরাজনীতি করবে। ক্যাম্পাসে আবারও হত্যার রাজনীতি শুরু হবে।

প্রসঙ্গত, ডিপ্লোমা কোর্সে ভর্তির ক্ষেত্রে বয়সসীমা উঠিয়ে দেওয়া ছাড়াও মন্ত্রণালয় ছেলেদের ভর্তির ক্ষেত্রে ন্যূনতম যোগ্যতা জিপিএ ৩ দশমিক ৫ থেকে কমিয়ে ২ দশমিক ৫, মেয়েদের ক্ষেত্রে জিপিএ ৩ থেকে কমিয়ে ২.২৫ করার সিদ্ধান্ত নেয়। পাশাপাশি ডিপ্লোমা কোর্সে ভর্তি ফি ১ হাজার ৮২৫ টাকা থেকে কমিয়ে ১ হাজার ৯০ টাকা করা হয়। কারিগরি সেক্টরের উদ্যোক্তারা বলেন, ভর্তির ন্যূনতম যোগ্যতা কমানোর সিদ্ধান্তও ঠিক হয়নি। এর ফলে পলিটেকনিকে আর মেধাবীরা ভর্তি হবে না।

Sharing is caring!