চাকরির প্রলোভনে হোটেলে আটকে রেখে দেহ ব্যবসা : আটক-৩

প্রকাশিত: ১১:০৯ অপরাহ্ণ, আগস্ট ৩, ২০২০

স্টাফ রিপোর্টার ॥ নগরীর দক্ষিণ চক বাজার এলাকার আওয়ামী লীগ নেতার মালিকানাধীন একটি আবাসিক হোটেলে চাকরির প্রলোভন দেখিয়ে অনৈতিক কাজে বাধ্য করা দুই তরুণীকে উদ্ধার করেছে মহানগর গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ।

পাশাপাশি তাদের জিম্মি করে অনৈতিক কাজে বাধ্য করা হোটেলের চুক্তিভিত্তিক তিন মালিককে আটক করেছে তারা। আটককৃতরা হলেন- মো. সেলিম চৌকিদার, মো. আনোয়ার হোসেন ও মো. বেলাল গাজী।

সোমবার দুপুরে বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের গোয়েন্দা (ডিবি) শাখা থেকে ই-মেইলে প্রেরিত এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এই তথ্য জানানো হয়েছে।
ডিবি পুলিশ জানায়, ‘দক্ষিণ চকবাজার জেলা পরিষদের সামনে হোটেল পায়ের (সাবেক পাতারহাট) আবাসিক এর দ্বিতীয় তলায় কতিপয় ব্যক্তি দুটি মেয়েকে চাকুরির প্রলোভন দেখিয়ে আটকে রেখে অনৈতিক কাজে বাধ্য করা হচ্ছে।

এমন সংবাদের ভিত্তিতে ২ আগস্ট সন্ধ্যা সাড়ে ৭টার দিকে গোয়েন্দা শাখার সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. রবিউল ইসলাম শামীম এর নেতৃত্বে হোটেল পায়েল আবাসিকে অভিযান পরিচালনা করে ডিবি’র টিম।

এ অভিযানে অংশ নেন গোয়েন্দা শাখার পুলিশ পরিদর্শক মো. আব্দুল হালিম খন্দকার, উপ-পরিদর্শক (এসআই) মো. দেলোয়ার হোসেন- পিপিএম ও এসআই মো. নজরুল ইসলামসহ তাদের সঙ্গীয় অফিসার এবং ফোর্স।

এসময় আভিযানিক দল হোটেলের দ্বিতীয় তলায় পশ্চিম পাশের একটি কক্ষ হতে ভিকটিম দ্বয়কে উদ্ধার করে। পাশাপাশি তাদের আটকে রেখে অনৈতিক কাজে বাধ্য করার অপরাধে মো. সেলিম চৌকিদার, মো. আনোয়ার হোসেন ও বেলালা গাজীকে আটক করে।

এই ঘটনায় বরিশাল মহানগরীর কোতয়ালী মডেল থানায় গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশ বাদী হয়ে মামলা দায়ের করেছে। মামলায় হোটেলের মূল মালিক বিসিসি’র ৬ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক আক্তারুজ্জামানসহ আটককৃত তিনজনকে আসামি করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন বিএমপি’র গোয়েন্দা শাখার সহকারী পুলিশ কমিশনার মো. রবিউল ইসলাম শামীম।

Sharing is caring!