গ্রেনেড হামলায় শহীদদের স্মরণে বরিশাল জেলা ও মহানগর আ’লীগের আলোচনা সভা

প্রকাশিত: ১১:১৫ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২১, ২০২০

 

স্টাফ রিপোর্টার \ “ভয়াল ২১ শে আগস্টের খুনিদের ফাঁসির চাই” এ দাবি নিয়ে বরিশালে পালিত হয়েছে বর্বরোচিত ২১ শে আগস্ট গ্রেনেড হামলা দিবস। শুক্রবার বরিশাল জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের উদ্যোগে দিনটি উপলক্ষে বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করা হয়।

কর্মসূচির অংশ হিসেবে সকালে দলীয় কার্যালয়ে কালোপতাকা উত্তোলন এবং জাতীয় পতাকা অর্ধনমিত রাখা হয়।

এছাড়া শুক্রবার বিকালে নগরীর শহীদ সোহেল চত্বরে দলীয় কার্যালয়ে আলোচনা সভার আয়োজন করে জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগ। এতে প্রধান অতিথি ছিলেন বরিশাল জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট তালুকদার মো. ইউনুস।

মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি এ্যাডভোকেট এ.কে.এম জাহাঙ্গীর এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথি’র বক্তৃতায় সাবেক এমপি তালুকদার মো. ইউনুস বলেন, ‘১৬ বছর আগে অর্থাৎ ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট ঢাকার বঙ্গবন্ধু অ্যাভিনিউ আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে তৎকালীন বিরোধীদলীয় নেতা শেখ হাসিনার সন্ত্রাসবিরোধী শান্তির সমাবেশে অতর্কিত গ্রেনেড হামলা চালানো হয়। এতে মারা যান আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদক আইভি রহমানসহ ২৪ জন। আহত হন শেখ হাসিনাসহ পাঁচ শতাধিক নেতা-কর্মী।

তিনি আরো বলেন, ২১ আগস্টের গ্রেনেড হামলা ছিল ১৯৭৫-এর ১৫ আগস্টের কালরাতের বর্বরোচিত হত্যাকাণ্ডের ধারাবাহিকতা। আওয়ামী লীগকে নেতৃত্ব শূন্য করতে সংগঠনের সভাপতি শেখ হাসিনাসহ দলের প্রথম সারির নেতাদের হত্যার উদ্দেশ্যেই খুনি তারেকের নেতৃত্বে ওই ঘৃণ্য হামলা চালায় ঘাতকরা।

শুধু গ্রেনেড হামলাই নয়, সেদিন শেখ হাসিনার গাড়ি লক্ষ্য করেও চালানো হয় ছয় রাউন্ড গুলি। অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে গেলেও তিনি আহত হন, তাঁর শ্রবণশক্তি চিরদিনের মতো ক্ষতিগ্রস্ত হয়।

বর্বরোচিত ২১ শে আগস্ট গ্রেনেড হামলাকারী খুনিদের দ্রæত ফাঁসির রায় কার্যকরের দাবি জানিয়ে তালুকদার মো. ইউনুস, ‘জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শ ধারণ করে তাঁরই সুযোগ্য কণ্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনার নেতৃত্বে প্রতিটি নেতাকর্মীকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে নিরলসভাবে কাজ করার আহŸান জানান।
আলোচনা সভায় অন্যান্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- জেলা আওয়ামী লীগের সহ-

সভাপতি সৈয়দ আনিস, মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি এ্যাডভোকেট আফজালুল করিম, জেলা আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুনসুর আহমেদ, মো. জাকির হোসেন, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক মো. মোয়াজ্জেম হোসেন চুন্নু, উপ-দপ্তর সম্পাদক কাউয়ুম খান কায়সার ও মহানগর আওয়ামী লীগ নেতা মো. আনোয়ার হোসেন।

এছাড়াও মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক সহ-সভাপতি ও সদর উপজেলা চেয়ারম্যান সাইদুর রহমান রিন্টু ও জেলার উপ-প্রচার সম্পাদক অ্যাডভোকেট মো: মিলন ভূঁইয়াসহ বরিশাল জেলা ও মহানগর আওয়ামী লীগের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Sharing is caring!