উজিরপুরে নদী থেকে উদ্ধার হওয়া কিশোরীর অর্ধগলিত লাশের পরিচয় মিলেছে

প্রকাশিত: ২:৩৪ অপরাহ্ণ, জুলাই ৪, ২০২০

বানারীপাড়া প্রতিনিধি ॥ উজিরপুর উপজেলার হারতায় সন্ধ্যা নদীর শাখা কঁচা নদী থেকে ভাসমান অবস্থায় উদ্ধার হওয়া সেই কিশোরীর লাশের পরিচয় পাওয়া গেছে। তার নাম বৃষ্টি। সে পার্শ্ববর্তী মাদারীপুরের কালকিনির সিটখানার জহির বেপারীর মেয়ে।

বৃষ্টি নারায়ণগঞ্জের কাঁচপুরে পরিবারের সাথে থাকতো এবং সেখানে একটি মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ৯ম শ্রেণীর ছাত্রী ছিলো। সে পরিবারের সাথে গ্রামের বাড়িতে বেড়াতে এসে গত ৩০জুন মঙ্গলবার সিটখানার বাড়ি সংলগ্ন আড়িয়ালখা নদীর শাখা নদীতে ছোট বোনকে সঙ্গে নিয়ে কলা গাছের ভেলা নিয়ে সাঁতার শিখতে গিয়ে নদীতে ডুবে যায়। তাৎক্ষণিক স্থানীয় লোকজন নদীতে জাল ফেলে ও পরে ফায়ার সার্ভিসের ডুবরি দিয়ে সন্ধান করেও তার খোঁজ পাননি। এছাড়া স্বজনরা ট্রলার নিয়ে নদীতে অনেক খোঁজ করেও সন্ধান পাননি বৃষ্টির।

শুক্রবার বিকালে উজিরপুর উপজেলার হারতা এলাকায় সন্ধ্যা নদীর শাখা কঁচা নদী থেকে কিশোরীর অর্ধগলিত লাশ উদ্ধারের পর বিভিন্ন সংবাদ মাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদ দেখে স্বজনরা গতকাল শনিবার সকালে উজিরপুর মডেল থানায় এসে লাশ শনাক্ত করেন। এসময় সেখানে স্বজনদের কান্নায় পরিবেশ ভারী হয়ে ওঠে এবং এক হৃদয়বিদারক দৃশ্যের অবতারণা হয়। পরে পরিবারের কাছে লাশ হস্তান্তর করা হয়।

এ প্রসঙ্গে উজিরপুর মডেল থানার ওসি জিয়াউল আহসান বলেন, শনাক্তের পরে লাশ পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।