আজকের বার্তা | logo

৬ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৭ই ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ইং

আন্দারমানিক নদী তীরসহ পৌরশহরে খালের ৮৮ অবৈধ স্থাপনার তালিকা তৈরি সম্পন্ন

প্রকাশিত : জানুয়ারি ৩১, ২০১৯, ০১:৩২

আন্দারমানিক নদী তীরসহ পৌরশহরে খালের ৮৮ অবৈধ স্থাপনার তালিকা তৈরি সম্পন্ন

কলাপাড়া প্রতিনিধি ॥ অবশেষে ইলিশের অভয়াশ্রম আন্দারমানিক নদীর তীর দখল করে কলাপাড়া পৌরশহর এলাকার ১০টি স্থাপনা উচ্ছেদের জন্য তালিকা করা হয়েছে। একইভাবে কলাপাড়া পৌরশহরের রহমতপুর এলাকায় খাল দখল করে তোলা ৭৮ টি স্থাপনা উচ্ছেদে তালিকা করে পটুয়াখালী জেলা প্রশাসনের কাছে পাঠানো হয়েছে। ফেব্রুয়ারি/মার্চ মাসের যে কোনো দিন এসব স্থাপনা উচ্ছেদে অভিযান চালানো হবে। খবর উপজেলা ভূমি প্রশাসনসহ নির্ভরযোগ্য সূত্রের। কলাপাড়ার সহকারী কমিশনার (ভূমি) অনুপ দাশ জানান, জেলা প্রশাসন থেকে ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োগ প্রক্রিয়াধীন। এসব অবৈধ দখলদার উচ্ছেদ এখন সময়ের ব্যাপার। নোটিশ পর্যন্ত এসে গেছে। কলাপাড়ায় পৌরসভার মাঝখান দিয়ে বহমান শহরের প্রাণখ্যাত তিনটি খাল এখন দখল দূষণে মৃতপ্রায়। এখালের সীমানা চিহ্নিত করে খালটি পুনর্খনন দরকার। শহরের সকল বর্জ্যসহ পানি চলাচল করে এ খাল দিয়ে। স্লুইস সংযুক্ত খালটি দিয়ে বর্ষাকালে পৌরসভা এবং টিয়াখালী ইউনিয়নের একাংশের পানি চলাচল করে। শহরটির সকল ড্রেনের আউটলাইন রয়েছে খালের সঙ্গে। কিন্তু খালের দুইপাড়সহ মূল খাল দখল করে টিনশেডসহ পাকা এমনকি, বহুতল ভবন করা হয়েছে। ফলে শহরের জলাবদ্ধতা দূরকরণের পন্থাও থাকছে না। আর বসতবাড়িসহ আবাসিক হোটেলের পয়:নিষ্কাশনের আউটলাইন পর্যন্ত শহরের ড্রেন হয়ে খালের সঙ্গে সংযোগ করা রয়েছে। খালটি উদ্ধারে বিভিন্ন সময় গণমাধ্যমকর্মীসহ সচেতন পরিবেশকর্মীরা আন্দোলন করে আসছেন। কিন্তু পৌরসভা কর্তৃপক্ষের আন্তরিকতা নিয়ে সচেতনমহলে প্রশ্নের উদ্রেক হয়েছে। তারা খালের সীমানা দখল করা ভবন নির্মাণে কোনো প্রকার বাধা দিচ্ছে না। একইভাবে ইলিশের অভয়াশ্রমখ্যাত কলাপাড়া শহরের দক্ষিণ দিক দিয়ে বয়ে যাওয়া আন্দারমানিক নদীর তীরসহ পানির প্রবাহ রয়েছে এসব জায়গায় তোলা হচ্ছে পাকা-আধাপাকা বহুতল স্থাপনা। আর টিনশেড স্থাপনা তো আছেই। এমনকি লঞ্চঘাটের পূর্বপাশে কয়েকটি বহুতল আরসিসি পিলার দিয়ে স্থাপনা তোলার কাজ চলছে। এছাড়া খোদ পৌরসভা কর্তৃপক্ষ শহরের বর্জ্য লঞ্চঘাট সংলগ্ন নদীর তীরে ফেলছে। ফলে আন্দারমানিক ভরাট ও দখল দূষণের কবলে পতিত হচ্ছে। এসব দিক বিবেচনায় কলাপাড়া পৌরসভার অভ্যন্তরের খাল এবং আন্দারমানিক রক্ষায় ঝুঁকিপূর্ণ স্থাপনাগুলোর তালিকা তৈরি করে জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে উচ্ছেদের জন্য পাঠানো হয়েছে। এখন যে কোনো সময় এসব স্থাপনা উচ্ছেদ প্রক্রিয়া চলবে বলে ভূমি প্রশাসন উদ্যোগ নিয়েছে।

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।