আজকের বার্তা | logo

৭ই ফাল্গুন, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৯শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৯ ইং

নেছারাবাদে প্রতিবন্ধি কিশোরী ধর্ষণ সুপারি বাগানে নিয়ে

প্রকাশিত : নভেম্বর ২৯, ২০১৮, ১৮:৩৭

নেছারাবাদে প্রতিবন্ধি কিশোরী ধর্ষণ সুপারি বাগানে নিয়ে

অনলাইন সংরক্ষণ  //   নেছারাবাদ উপজেলার সোহাগদল ইউনিয়নের মাঝিবাড়ী এলাকার এক শারিরীক প্রতিবন্ধি (ছদ্দনাম) তামান্না (১৫) ধর্ষনের শিকার হয়েছে। ধর্ষনের ঘটনায় নেছারাবাদ থানায় ধর্ষিতার মা বাদী হয়ে সোহাগ ও আলম দুইজনের নামে ধর্ষন মামলা দায়ের করেন।

ধর্ষিতার মা জানায়, ২২ নভেম্বর (বৃহস্পতিবার) বিকলের দিকে আমার প্রতিবন্ধি কিশোরী মেয়েটি সুটিয়াকাঠী ইউনিয়নের বালিহাড়ী গ্রামের তার মামাবাড়ী বেড়াতে যায়। তখন রাস্তা দিয়ে যাবার সময় ওই দুই লম্পট মেয়েটিকে পাশের সুপারি বাগানের মধ্যে নিয়ে মেয়ের ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর পূর্বক ধর্ষন করে। আমার মেয়ের ডাক চিৎকার শুনিয়া স্থানীয় লোকজন ছুটে আসলে লম্পট ধর্ষকদ্বয় পালিয়ে যায়। আমি তাদের কঠিন শাস্তি চাই।

স্থানীয় ইউপি মহিলা সদস্য মোসাঃ বিলকিস বেগম জানান, ঘটনাটি প্রথমে দুই সাংবাদিকের মাধ্যমে শুনেছি পরে মেয়ের মাকে আইনি পদক্ষেপ নেয়ার জন্য বলি।

নেছারাবাদ থানার অফিসার ইনচার্জ (তদন্ত) মোঃ সহিদুল ইসলাম বলেন, এ বিষয়ে ২৮ নভেম্বর রাতে ধর্ষিতার মা বাদী হয়ে একটি মামলা করেছেন। ভিকটিম এর মেডিকেল পরীক্ষার জন্য পিরোজপুর সদর হাসপাতালে প্রেরন করা হয়েছে। আসামী গ্রেফতার হয়নি তবে গ্রেফতার করার চেষ্টা অব্যহত আছে।

তথ্য নিয়ে জানা যায়, ধর্ষক আলম (২১) ও সোহাগ (২০) উপজেলার সুটিয়াকাঠী ইউনিয়নের বালিহারী গ্রামের মানিক মিয়া ও হাকিম মাঝির ছেলে।

নেছারাবাদ উপজেলার সোহাগদল ইউনিয়নের মাঝিবাড়ী এলাকার এক শারিরীক প্রতিবন্ধি (ছদ্দনাম) তামান্না (১৫) ধর্ষনের শিকার হয়েছে। ধর্ষনের ঘটনায় নেছারাবাদ থানায় ধর্ষিতার মা বাদী হয়ে সোহাগ ও আলম দুইজনের নামে ধর্ষন মামলা দায়ের করেন।

ধর্ষিতার মা জানায়, ২২ নভেম্বর (বৃহস্পতিবার) বিকলের দিকে আমার প্রতিবন্ধি কিশোরী মেয়েটি সুটিয়াকাঠী ইউনিয়নের বালিহাড়ী গ্রামের তার মামাবাড়ী বেড়াতে যায়। তখন রাস্তা দিয়ে যাবার সময় ওই দুই লম্পট মেয়েটিকে পাশের সুপারি বাগানের মধ্যে নিয়ে মেয়ের ইচ্ছার বিরুদ্ধে জোর পূর্বক ধর্ষন করে। আমার মেয়ের ডাক চিৎকার শুনিয়া স্থানীয় লোকজন ছুটে আসলে লম্পট ধর্ষকদ্বয় পালিয়ে যায়। আমি তাদের কঠিন শাস্তি চাই।

স্থানীয় ইউপি মহিলা সদস্য মোসাঃ বিলকিস বেগম জানান, ঘটনাটি প্রথমে দুই সাংবাদিকের মাধ্যমে শুনেছি পরে মেয়ের মাকে আইনি পদক্ষেপ নেয়ার জন্য বলি।

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।