আজকের বার্তা | logo

২রা পৌষ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৫ই ডিসেম্বর, ২০১৮ ইং

বিদ্যালয়ে ঢুকে প্রধান শিক্ষিকাসহ ৪ জনকে লাঞ্ছিত: মামলা

প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ১৯, ২০১৮, ০৩:৩০

বিদ্যালয়ে ঢুকে প্রধান শিক্ষিকাসহ ৪ জনকে লাঞ্ছিত: মামলা

স্টাফ রিপোর্টার ॥ বরিশাল সদর উপজেলার টুঙ্গিবাড়িয়া ইউনিয়নের বিশরাদ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের নারী ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা, শিক্ষকসহ দপ্তরী ও এক যুবককে লাঞ্ছিত করার অভিযোগ উঠেছে স্থানীয় যুবলীগ নেতা সরোয়ার হোসেন রাঢ়ীর বিরুদ্ধে। ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি হতে না পারায় গতকাল বেলা ১১টায় বিদ্যালয়ে প্রবেশ করে ওই যুবলীগ নেতা শিক্ষকদের সাথে বাগবিত-ায় জড়িয়ে এক পর্যায়ে গায়ে হাত তোলেন বলে অভিযোগ রয়েছে। এ ঘটনায় বিদ্যালয়ের নারী প্রধান শিক্ষিকা রাহিমা আক্তার বাদী হয়ে মেট্রোপলিটন পুলিশের বন্দর থানায় গতকালই মামলা দায়ের করেছেন। পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। বন্দর থানার ওসি গোলাম মোস্তফা হায়দার বলেন, কমিটি গঠন নিয়ে দ্বন্দ্বে বিদ্যালয়টিতে দুই পক্ষে বিরোধের সৃষ্টি হয়। এ ঘটনায় ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক রাহিমা আক্তার লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। তাতে শিক্ষকদের মারধর ও লাঞ্ছিতের মত অভিযোগ করা হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা নেয়া হবে। বিদ্যালয়ের প্রস্তাবিত কমিটির সভাপতি মাহবুব হোসেন রাঢ়ী বলেন, গতকাল সকালে ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রাহিমা আক্তার, সহকারী শিক্ষক প্রিয়তোষ কর্মকার ও দপ্তরীর উপর চড়াও হন যুবলীগ নেতা সরোয়ার। লাথিও মেরেছেন একজনকে। এ ঘটনায় শিক্ষকরা থানায় মামলা করেছেন। এমনকি আজ বুধবার মানববন্ধনের ডাক দিয়েছেন তারা। জানতে চাইলে সদর উপজেলার টুঙ্গিবাড়িয়া ইউনিয়নের যুবলীগ নেতা সরোয়ার হোসেন রাঢ়ী বলেন, গত ৬ মাস আগে তাকে সভাপতি করে কমিটি করা হয়। এরপর সোমবার হঠাৎ করেই ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা রাহিমা আক্তার এর যোগসাজশে মাহবুব নামে একজনকে সভাপতি করে প্রস্তাবিত ম্যানেজিং কমিটি করা হয়েছে। গতকাল ওই কমিটির বিষয়ে জানতে গেলে ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষিকা রাহিমা আক্তার তার সাথে খারাপ আচরণ করেন। এটি নিয়ে তর্কবিতর্কের এক পর্যায়ে একটি ছেলে পাশে ছিলো, তাকে লাথি মেরেছেন। এটাকে কেন্দ্র করে মিথ্যা তথ্য ছড়ানো হয়েছে। তিনি এর সুষ্ঠু তদন্ত চান। বরিশাল সদর উপজেলা শিক্ষক সমিতির সভাপতি জহিরুল ইসলাম জাফর  বলেন, যুবলীগ নেতা সরোয়ার সন্ত্রাসী প্রকৃতির। তিনি বিদ্যালয়ের নারী ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক রাহিমা আক্তার, সহকারী শিক্ষক প্রিয়তোষ কর্মকার ও দপ্তরীকে লাঞ্ছিত করেছেন। এ ঘটনায় তারা আজ বুধবার নগরীর অশি^নী কুমার হলের সম্মুখে মানববন্ধন করবেন। এ ব্যাপারে সদর উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা রফিকুল ইসলাম বলেন, স্থানীয় যুবক সরোয়ার তার ৩ শিক্ষকের সাথেই খারাপ আচরণ করেছেন। গায়ে হাতও দিয়েছেন। ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকসহ সকলে তার কাছে এসে কান্নায় ভেঙে পড়েন। এ ঘটনায় শিক্ষকরা মামলা করেছেন। শিক্ষা কর্মকর্তা রফিকুল বলেন, তিনি বিষয়টি তার দপ্তরের উচ্চ পর্যায়ে অবহিত করেছেন।

 

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।