আজকের বার্তা | logo

৩০শে কার্তিক, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৪ই নভেম্বর, ২০১৮ ইং

বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসাসেবা থেকে বঞ্চিত রোগী

প্রকাশিত : সেপ্টেম্বর ১২, ২০১৮, ০২:৩২

বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসাসেবা থেকে বঞ্চিত রোগী

তারিকুল ইসলাম রতন, বরগুনা প্রতিনিধি ॥ মানুষের মৌলিক চাহিদার মধ্যে চিকিৎসাসেবা অন্যতম। দেশে নামেমাত্র স্বাস্থ্যসেবার উন্নতি হলেও কাজে ঝিমিয়ে পড়েছে সরকারি হাসপাতাল ও স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সগুলো। সর্বদক্ষিণে অবস্থানরত বরগুনা জেলা। আর এ জেলায় রয়েছে সদরসহ ৬টি উপজেলা। একমাত্র আমতলী উপজেলার যোগাযোগ ব্যবস্থা সুগম হলেও অন্যান্য উপজেলাগুলোর যোগাযোগ ব্যবস্থা খুবই নাজুক। এ অবস্থায় সাধারণ মানুষের জরুরি চিকিৎসা সেবা নিতে হলে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে যেতে হয়। এসকল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসক, নার্সসহ বিভিন্ন স্তরের জনবল সঙ্কট রয়েছে। নানাবিধ সমস্যার কারণে সাধারণ মানুষকে ছুটে আসতে হয় বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে। অথচ জেলা সদরের হাসপাতালেরও বেহাল দশা। যেমন রয়েছে প্রয়োজনীয় চিকিৎসক সংকট, ঠিক তেমনি রয়েছে সকল প্রকার ওষুধ ও সরঞ্জামাদি সংকট।  বরগুনার স্থানীয় সুশীল সমাজের নাগরিকদের অভিযোগ, ডি.জি. ঢাকা ও ডি.ডি. বরিশাল (স্বাস্থ্য) অফিসের বদলি বাণিজ্যের কারণেই মূলত এ চিকিৎসক সংকট তৈরি হয়েছে। চিকিৎসাসেবা দিতে যে পরিমাণ জনবল ও সরঞ্জামাদি প্রয়োজন, তা একদমই নেই। চিকিৎসক সংকটে বরগুনা জেনারেল হাসপাতাল আজ কয়েক যুগ ধরে ভুগছে। একটি জেনারেল হাসপাতালে একজন তত্ত্বাবধায়ক ও সিনিয়র, জুনিয়র, আবাসিক, জরুরি, সহকারী সার্জন, ডেন্টাল সার্জন, প্যাথলজিস্ট, রেডিওলজিস্টসহ প্রথম শ্রেণির কর্মকর্তার পদসংখ্যা  মোট  ৪৩ টি থাকলেও মাত্র ১০ টি পদে কর্মরত রয়েছেন কর্মকর্তারা। বাকি ৩৩ টি পদ শূন্য পড়ে রয়েছে। ২য় শ্রেণির কর্মকর্তার পদসংখ্যা মোট ৭৪ টি থাকলেও মাত্র ৪৩ টি পদে জনবল রয়েছে। বাকি ৩১ টি পদ শূন্য। ৩য় শ্রেণির কর্মচারীর পদসংখ্যা ৩২ টি থাকলেও কর্মরত রয়েছেন মাত্র ১৭ জন। বাকি ১৫ টি পদ শূন্য এবং সর্বশেষ ৪র্থ শ্রেণির কর্মচারীর পদ ৩৩ টি থাকলেও এখানে রয়েছে মাত্র ১০ টি। বাকি ২৩টি পদই শূন্য। বরগুনা জেনারেল হাসপাতালে মোট জনবল সংখ্যা ১৮২ থাকলেও মাত্র ৮১ জন দিয়েই চলছে চিকিৎসাসেবা। বাকি ১০১ টি পদ শূন্য রয়েছে। এভাবেই চলে আসছে কয়েক যুগ ধরে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের চিকিৎসাসেবা। বর্তমানে সিনিয়র কনসালট্যান্ট (সার্জারি, অর্থো সার্জারি, গাইনী, মেডিসিন, পেডিয়াট্রিক, ইএনটি, চক্ষু, কার্ডিওলজি, অ্যানেসথেশিয়া,প্যাথলজি) এর পদ সংখ্যা ১০ টি থাকলেও সবগুলো পদই শূন্য রয়েছে। জুনিয়র কনসালট্যান্ট ১১টি পদের মধ্যে সার্জারি, অর্থো সার্জারি, মেডিসিন, কার্ডিওলজি ও অ্যানেসথেশিয়াসহ মোট ৫টি পদে জনবল রয়েছে। বাকি (গাইনী, পেডিয়াট্রিক, ইএনটি, চক্ষু, প্যাথলজি ও রেডিওলজি)  ৬ টি পদ শূন্য রয়েছে। এর মধ্যে জুনিয়র কনসালট্যান্ট (সার্জারি) ডাঃ সুবর্ণা ইসলাম যোগদানের পরে কিছুদিন হাজিরা দিলেও এখন না এসেই বেতন নিচ্ছেন। অপরদিকে জুনিয়র কনসালট্যান্ট (কার্ডিওলজি) সপ্তাহে একদিনের জন্য এসে ইনডোর ভিজিট করে প্রাইভেট কিনিক বরগুনা ডক্টরস্ কেয়ারে চেম্বার করে ঢাকায় চলে যান। ডাক্তার সংকটের কারণে বিভিন্ন স্থান থেকে আগত গরীব রোগীদের গুণতে হচ্ছে বাড়তি অর্থ। এতে করে যত্রতত্র লাইসেন্সবিহীন কিনিকগুলো ফায়দা লুটছে। বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের ডাক্তার সঙ্কটের ব্যাপারে বরগুনা ১০০ শ’ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতাল তত্ত্বাবধায়ক ডাঃ সোহরাব উদ্দীন জানান, ‘‘আমাদের পক্ষ থেকে প্রত্যেক মাসের প্রতিবেদনে বরিশাল স্বাস্থ্য অধিদপ্তরকে অবহিত করা হয়। এছাড়াও মাঝেমধ্যে মোবাইলযোগেও ডাক্তার সঙ্কট এর ব্যাপারে বলা হয়ে থাকে। প্রধানমন্ত্রী ও স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয় বরগুনার প্রতি সু-দৃষ্টি বাড়িয়ে দিলে বরগুনা জেনারেল হাসপাতালের ডাক্তার সঙ্কট আর থাকবেনা বলে আমার মনে হয়।”

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।