আজকের বার্তা | logo

৫ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৫ বঙ্গাব্দ | ১৯শে নভেম্বর, ২০১৮ ইং

ইতিহাস কখনও মুছে ফেলা যায় না: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশিত : মার্চ ০৮, ২০১৮, ০০:৪৫

ইতিহাস কখনও মুছে ফেলা  যায় না: প্রধানমন্ত্রী

 

বার্তা ডেস্ক ॥ প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘বঙ্গবন্ধুকে হত্যার পর দেশের মতায় আসে স্বাধীনতাবিরোধীরা। তখন ৭ মার্চের ভাষণ বাজানোর কোনও অধিকার ছিল না। যেখানেই এই ভাষণ বাজানো হতো সেখানেই তারা বাধা দিতো। আমি স্যালুট করি আওয়ামী লীগের নেতা-কর্মীদের। শত নির্যাতন-বাধার পরও তারা এ ভাষণ বাজিয়েছিলেন। ইতিহাস কখনও মুছে ফেলা যায় না। শত চেষ্টার পরেও স্বাধীনতাবিরোধীরা এই ভাষণ মুছে ফেলতে পারেনি।’ গতকাল বুধবার রাজধানীর সোহরাওয়ার্দী উদ্যানে ঐতিহাসিক ৭ মার্চ উপলে আয়োজিত জনসভায় প্রধান অতিথির ভাষণে এসব কথা বলেন তিনি। প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘আজ যেখানে শিশুপার্ক ঠিক সেখানে সেদিনের মঞ্চ ছিল। আমার সৌভাগ্য হয়েছিল সেখানে উপস্থিত থাকার। জাতির পিতা সেখানে দাঁড়িয়েই ‘‘এবারের সংগ্রাম আমাদের মুক্তির সংগ্রাম, এবারের সংগ্রাম স্বাধীনতার সংগ্রাম’’ সেই ঐতিহাসিক ঘোষণা দিয়েছিলেন।’ শেখ হাসিনা হলেন, তার সেই ঘোষণা সমগ্র বাংলাদেশে ছড়িয়ে যায়। সত্যই প্রতিটি ঘরে দুর্গ গড়ে উঠে। পাকিস্তানিরা যখন গণহত্যা শুরু করলো তখন বঙ্গবন্ধু ইপিআরের ওয়্যারলেস ব্যবহার করে স্বাধীনতা না পাওয়া পর্যন্ত যুদ্ধ চালিয়ে যেতে বলছিলেন। বাংলার মানুষ সেই নির্দেশ অরে অরে পালন করেছে। তিনি আরও বলেন, ‘বাংলাদেশের মানুষের অর্থনৈতিক, সামাজিক, রাজনৈতিক মুক্তির জন্য বঙ্গবন্ধু আজীবন আন্দোলন করেছেন। যেখানেই বঙ্গবন্ধু অন্যায় দেখেছেন সেখানেই তিনি প্রতিরোধ গড়ে তুলেছিলেন। স্বাধীনতার পর মাত্র সাড়ে ৩ বছর সময় পেয়েছিলেন বঙ্গবন্ধু। এই সামান্য সময়েই তিনি সারাবিশ্বে বাংলাদেশের স্বীকৃতি আদায়, মানুষের অভাব দূর, রাস্তাঘাট সংস্কার, এককোটি শরণার্থীর পুনর্বাসনসহ অনেক উন্নয়ন করেছেন। কিন্তু যখনই দেশ ভালোভাবে চলতে শুরু করে, তখনই বঙ্গবন্ধুকে হত্যা করা হয়। তিনি দেশ স্বাধীন করেছিলেন, এটাই কি তার অপরাধ ছিল?’

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।