আজকের বার্তা | logo

১২ই ফাল্গুন, ১৪২৪ বঙ্গাব্দ | ২৩শে ফেব্রুয়ারি, ২০১৮ ইং

বরিশালে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযান: গ্রেপ্তার-২০

প্রকাশিত : ফেব্রুয়ারি ০৮, ২০১৮, ০১:৩৭

বরিশালে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযান: গ্রেপ্তার-২০

বার্তা ডেস্ক ॥ আজ ৮ ফেব্রুয়ারি বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার রায়কে কেন্দ্র করে ও ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বরিশাল সফরকে ঘিরে বিশৃংখলা ঠেকাতে নগরীসহ গোটা জেলায় অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। আমাদের স্টাফ রিপোর্টার ও প্রতিনিধিদের পাঠানো খবর- স্টাফ রিপোর্টার : আজ ৮ ফেব্রুয়ারি বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার রায়কে কেন্দ্র করে বিশৃংখলা ঠেকাতে বরিশাল নগরীসহ গোটা জেলায় অভিযান চালিয়েছে পুলিশ। সড়কে সড়কে বসানো হয়েছে একাধিক চেক পোস্ট। গতকাল বুধবার বিকেল পর্যন্ত ৫ জনকে আটক করেছে পুলিশ। বিএনপির পক্ষ থেকে দাবি করা হয়েছে, কর্মসূচি না থাকলেও নেতাকর্মীদের ঘরে ঘরে অভিযানের নামে তাদের হয়রানি করছে পুলিশ। তবে বরিশাল সফরে আসা আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুবুল আলম হানিফ এমপি বলেছেন, রায়কে ঘিরে সন্ত্রাসী কর্মকা- করা হলে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী কঠোর হস্তে তা দমন করবে। বেগম জিয়ার বিরুদ্ধে মামলার রায় নিয়ে যে কোন অরাজকতা সৃষ্টির আশংকায় সতর্কাবস্থানে রয়েছে আইন-শৃঙ্খলা বাহিনী। বিভিন্ন স্থানে পুলিশ মোতায়েনসহ বাড়ানো হয়েছে টহল। এছাড়া বিভিন্ন সড়কের মোড়ে এবং গুরুত্বপূর্ণ স্থানে বিভিন্ন যানবাহন এবং সন্দেহভাজন ব্যক্তিদের তল্লাশি করছে র‌্যাব এবং পুলিশ। বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের মুখপাত্র সহকারী কমিশনার শাখাওয়াত হোসেন বলেন, পুলিশ সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে। কোন ধরনের অরাজকতা সৃষ্টি করতে দেয়া হবে না। এদিকে জানা গেছে, মঙ্গলবার রাতে বরিশাল নগরীসহ জেলার বিভিন্ন উপজেলায় নেতাকর্মীদের বাড়িতে তল্লাশি চালিয়েছে পুলিশ। মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহ সভাপতি মনিরুজ্জামান ফারুকের বাসভবনে রাতে তল্লাশি চালানোর অভিযোগ উঠেছে। তিনি বলেন, পুলিশ তাকে না পেয়ে বাসায় তার কক্ষ ভাঙার চেষ্টা করে। কোতোয়ালী থানার ওসি শাহ মো: আওলাদ হোসেন বলেন, তার আওতাধীন কোন আটকের ঘটনা নেই। তবে প্রধানমন্ত্রীর আজ বৃহস্পতিবারের আগমন উপলক্ষে সর্বোচ্চ সতর্ক অবস্থায় রয়েছে পুলিশ। একই ধরনের মন্তব্য করে বিমানবন্দর থানার ওসি আনোয়ার হোসেন ও কাউনিয়া থানার ওসি নুরুল ইসলাম বলেছেন, কারো বাসায় তল্লাশি করা হয়নি। তবে পুলিশ সতর্ক রয়েছে। জানা গেছে, গৌরনদীতে বুধবার রাতে বিএনপি নেতা বারেক সরদারকে আটক করে পুলিশ। উপজেলার বার্থী ইউনিয়ন বিএনপি নেতা আমিনুল ইসলাম শাহিন, ছাত্রদল নেতা জাকির হোসেন, ফরিদ হোসেনের বাড়িতে তল্লাশি চালায় পুলিশ। কাজিরহাট থানার ওসি মাসুম তালুকদার বলেন, আইন-শৃংখলার অবনতি ঘটতে পারে এমন আশংকায় ৪ জন বিএনপি-জামায়াতের নেতাকে আটক করা হয়েছে। এরা হচ্ছেন- কাজিরহাট থানা জামায়াতের সাধারণ সম্পাদক অহিদুল ইসলাম, আন্ধারমানিক ইউনিয়ন ছাত্রদল আহবায়ক মো: মহসিন, বিএনপি নেতা নাসির ও মাহবুব। বিএনপির বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক বিলকিস জাহান শিরিন বলেন, সরকার অহেতুক পুলিশ দিয়ে নির্যাতন করছে। কোন কর্মসূচি না থাকলেও নেতাকর্মীদের ঘরে ঘরে তল্লাশি করা হচ্ছে। আটক করা হয়েছে বেশ কয়েকজন নেতাকে।

ঝালকাঠি প্রতিনিধি : নাশকতার চেষ্টার অভিযোগে ঝালকাঠিতে বিশেষ ক্ষমতা আইনে বিএনপির ১০ নেতাকর্মীর নামে মামলা করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার রাতে ঝালকাঠি সদর থানায় এবং নলছিটি থানায় মামলা দুটি দায়ের করা হয়। ঝালকাঠি সদর থানার মামলায় আসামি করা হয়েছে জেলা যুবদলের সাধারণ সম্পাদক শামীম তালুকদার, জেলা ছাত্রদলের আহ্বায়ক সরদার শাফায়াত হোসেন, যুগ্ম আহ্বায়ক এনামুল হক সাজু ও পৌর শ্রমিক দলের সাধারণ সম্পাদক হেমায়েত হোসেনকে। এদের মধ্যে হেমায়েত হোসেনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ঝালকাঠি থানার উপপরিদর্শক মো. দেলোয়ার হোসেন বাদী হয়ে এ মামলা দায়ের করেন। এদিকে নলছিটি থানায় দায়ের করা বিশেষ ক্ষমতা আইনের মামলায় আসামি করা হয়েছে উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক সেলিম গাজী, যুবদল সভাপতি মাসুম শরীফ, ছাত্রদলের সাবেক সভাপতি মো. আসলাম খান ও শিবিরকর্মী জিহাদুল ইসলামসহ ছয়জনকে। এদের মধ্যে জিহাদুল ইসলামকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। নলছিটি থানার উপপরিদর্শক মো. সোলায়মান বাদী হয়ে মামলাটি দায়ের করেন। এছাড়াও একই রাতে কাঁঠালিয়া উপজেলা বিএনপি কর্মী বাবুল সিকদারকে গ্রেপ্তার করা হয়। মঙ্গলবার রাত থেকে পুলিশ বিএনপি নেতাদের বাসায় গিয়ে তল্লাশি শুরু করে। গ্রেপ্তার আতঙ্কে পালিয়ে বেড়াচ্ছেন বিএনপি নেতারা।

মঠবাড়িয়া প্রতিনিধি : বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মামলার রায় ঘোষণাকে কেন্দ্র করে নাশকতা এড়াতে পিরোজপুরের মঠবাড়িয়ায় বিএনপির দুই নেতাকর্মীকে মঙ্গলবার রাতে গ্রেপ্তার করেছে থানা পুলিশ। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন-উপজেলা যুবদলের সদস্য মেহেদী হাসান ও সাফা ইউনিয়ন ছাত্রদলের সদস্য মিজানুর রহমান। মঠবাড়িয়া থানার অফিসার ইনচার্জ কেএম তারিকুল ইসলাম গ্রেপ্তারের সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, গ্রেপ্তারকৃতদের বুধবার আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ভোলা প্রতিনিধি ঃ ৮ ফেব্রুয়ারি খালেদা জিয়ার দুর্নীতি মামলার রায়কে কেন্দ্র করে ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার বরিশাল সফরকে ঘিরে সারা দেশের ন্যায় উপকূলীয় দ্বীপ জেলা ভোলায়ও সতর্কাবস্থায় রয়েছে পুলিশ। তল্লাশি করা হচ্ছে বিএনপি কার্যালয়। নাশকতার আশঙ্কায় বুধবার গভীর রাত থেকে গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল পর্যন্ত বিএনপি ও এর অঙ্গসংগঠনের ৩ নেতাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। গ্রেপ্তারকৃতদেরকে গতকাল আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়। জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক হারুন-অর-রশিদ ট্রুম্যান জানান, পুলিশ ভোলার লালমোহন উপজেলা বিএনপির সহ-সভাপতি আবি আব্দুল্লাহ খোকন ও লালমোহন সদর ইউনিয়ন বিএনপি নেতা বাবুলকে এবং ভোলা সদর উপজেলার ৪ নম্বর ওয়ার্ড যুবদলের সভাপতি নবীরকে গ্রেপ্তার করেছে। তিনি আরো বলেন, পুলিশ গতকাল সন্ধ্যায় জেলা বিএনপি কার্যালয় তল্লাশি করেছে। ভোলা সদর মডেল থানার ওসি ছগির আহমেদ জানান, পুলিশ শহরের বিভিন্ন এলাকায় সতর্কাবস্থায় রয়েছে। বিএনপি অফিসের সামনেও পুলিশ মোতায়েন রয়েছে। এ ব্যাপারে ভোলার পুলিশ সুপার মোঃ মোকতার হোসেন জানান, নাশকতার আশঙ্কায় পুলিশ এদেরকে গ্রেপ্তার করেছে।

Share Button


আজকের বার্তা

আগরপুর রোড, বরিশাল সদর-৮২০০

বার্তা বিভাগ : ০৪৩১-৬৩৯৫৪(১০৫)
ফোনঃ ০১৯১৬৫৮২৩৩৯ , ০১৬১১৫৩২৩৮১
ই-মেলঃ ajkerbarta@gmail.com

সামাজিক যোগাযোগ
Site Map
Show site map

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত
প্রকাশকঃ কাজী মেহেরুন্নেসা বেগম
সম্পাদক ও প্রতিষ্ঠাতাঃ কাজী নাসির উদ্দিন বাবুল
Website Design and Developed by
logo

আজকের বার্তা কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। অনুমতি ছাড়া এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি ও বিষয়বস্তু অন্য কোথাও প্রকাশ করা বেআইনি।